শনিবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২২

শিবির সম্পৃক্ততার অভিযোগে লংগদুতে ছাত্রলীগের তিন নেতাকে অব্যাহতি

প্রকাশিত: মঙ্গলবার, এপ্রিল ২৭, ২০২১

রাঙামাটির লংগদু উপজেলার তিন ছাত্রলীগ নেতার বিরুদ্ধে ‘শিবির’ সম্পৃক্ততার দায়ে সাংগঠনিক শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযােগে ‘অব্যাহতি’ দিয়েছে উপজেলা ছাত্রলীগ।

সোমবার রাতে গণমাধ্যমে পাঠানাে এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে রাঙামাটির লংগদু উপজেলা ছাত্রলীগ বিষয়টি জানিয়েছেন।

লংগদু উপজেলার শিবির সম্পৃক্ততায় ‘অব্যাহতি’ প্রাপ্তরা হলেন-লংগদু মডেল কলেজ ছাত্রলীগের সাবেক ক্রীড়া সম্পাদক ফারহাদ আল ফারদীন, সাবেক উপ-শিক্ষা ও পাঠচক্র সম্পাদক মেহেদী হাসান এবং উপজেলা ছাত্রলীগের কর্মী নুরুল ইসলাম।

উপজেলা ছাত্রলীগের দপ্তর সম্পাদক রােকন উদ্দিন স্বাক্ষরিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, ‘বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ লংগদু উপজেলা কমিটির সভাপতি ও সম্পাদকের নির্দেশক্রমে দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গ এবং জামায়াত-শিবিরের সাথে সম্পৃক্ততা থাকায় এই তিনজনকে লংগদু উপজেলা ছাত্রলীগের সকল প্রকার কার্যক্রম থেকে অব্যাহতি দেয়া হলাে এবং তাদের কােন কার্যক্রমের দায়ভার লংগদু উপজেলা ছাত্রলীগ নিবে না।’

লংগদু উপজেলা ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আল মাহমুদ জানিয়েছেন, জামায়াত-শিবিরের সাথে সম্পৃক্ততার বিষয়ে তাদের বিরুদ্ধে সুনির্দিষ্ট অভিযােগ থাকায় উপজেলা আওয়ামীলীগের পরামর্শের ভিত্তিতে এই তিনজনকে অব্যাহতি দেয়া হয়েছে। বিষয়টি জেলা কমিটিকেও লিখিতভাবে অবহিত করা হয়েছে।’

উল্লেখ্য, এই ঘটনাসহ গত একমাসে হেফাজত ও শিবিরের সাথে সম্পৃক্ততায় মোট চারটি পৃথক ঘটনায় বহিষ্কার হলেন মােট ৫ ছাত্রলীগ নেতা ও ১ যুবলীগ নেতা। এরা হলেন কাপ্তাই উপজেলার কাপ্তাই ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ওমর ফারুক, রাঙামাটি পৌর ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আবির হাসান, লংগদু উপজেলার বগাচতর ইউনিয়ন যুবলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আমির হাসন মিটু এবং সর্বশেষ শিবির সম্পৃক্ততায় এই তিন জন।

আরো পড়ুন